চট্টগ্রাম জেলার ইফতারের সময়সূচি ২০২৩

বন্দরনগরী চট্টগ্রামে আপনারা যারা বসবাস করে থাকেন এবং আপনারা যারা মাহে রমজান মাসে পালন করতে চান তাদের জন্য সেহরি ও ইফতারের সময়সূচি আমাদের ওয়েবসাইটে নিয়মিতভাবে প্রদান করা হচ্ছে। মাহে রমজান মাস পালন করার উদ্দেশ্যে আমাদেরকে প্রত্যেকটি কাজে সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে হলে অবশ্যই প্রত্যেকটি বিষয়ে সুষ্ঠুভাবে সময় অনুযায়ী করা

উচিত এবং এর জন্য সময় সম্পর্কে জ্ঞান ধারণ করা উচিত। প্রত্যেক বছর সূর্যাস্তের উপরে নির্ভর করে ইসলামিক ফাউন্ডেশন যে সময়সূচী আমাদের উদ্দেশ্যে প্রদান করে থাকে সেগুলো প্রত্যেকটি জেলার সঙ্গে কিছুটা পার্থক্য হয়ে থাকার কারণে আমরা আপনাদেরকে সেই পার্থক্য অনুযায়ী প্রদান করে থাকি। তাই আপনারা যারা চট্টগ্রাম জেলা শহরে বসবাস করেন তাদেরকে অবশ্যই এই সময়সূচি অনুসরণ করতে হবে এবং অন্যের মাঝে যদি এই সময়সূচি শেয়ার করেন তাহলে তারাও সময় সম্পর্কে ধারণা অর্জন করে শহর পর্যায়ের ব্যাক্তিরা যাবতীয় কর্ম ব্যস্ততা শেষ করে ইফতারের অংশগ্রহণ করতে পারবে।

একজন মুসলিম যদি প্রকৃতপক্ষে বলতে পারে এই মাহে রমজান মাসের ফজিলত কতটুকু গুরুত্বপূর্ণ অথবা মাছের রমজান মাস প্রত্যেকটা মুসলমানের জীবনে কতটা গুরুত্বপূর্ণ তাহলে সেই ব্যক্তি অবশ্যই এই মাহে রমজান মাসের ইবাদত গুলো কখনোই ছাড়বেনা অথবা কোনটাই কাজা করবে না। তাই মাহে রমজানের গুরুত্ব আমাদেরকে বুঝতে হবে এবং এই গুরুত্ব যদি আমরা সকলে বুঝতে পারি তাহলে দেখা যাবে যে আমাদের ভেতরের যাবতীয় দোষ ত্রুটি গুলো আস্তে আস্তে দূর হতে শুরু করেছে এবং আমরা ভালো অভ্যাসের মধ্য দিয়ে মহান আল্লাহ পাকের দেখানো পথে নিজেদেরকে পরিচালনা করার ক্ষেত্রে কোন ধরনের অসুবিধা বোধ করছি না।

সাধারণত মহান আল্লাহ পাকের পথে চলতে গেলে শয়তানের প্ররোচনায় আমরা অনেক সময় ভুল পথে পরিচালিত হয়ে থাকি এবং আমরা নিজেদেরকে নিয়ন্ত্রণ করতে না পারার কারণে আবার ভুল পথে নিজেদের জীবনকে সুন্দরভাবে পরিচালনা করার জন্য তাগিদ বোধ করি। তাই মাহে রমজান মাসের এই শিক্ষাগুলো আমাদেরকে এমনভাবে গ্রহণ করতে হবে এবং এমনভাবে বিশ্বাস করার পাশাপাশি তা মেনে চলার প্রতিজ্ঞা করতে হবে যাতে করতে আমরা সারা বছর মেনে চলতে পারি। মাহে রমজান মাসে অল্প খেয়ে আত্ম সন্তুষ্টি অর্জন করার মাধ্যমে আপনারা যে শিক্ষা পেয়ে থাকি তাতে করে সারা বছর যাতে সুষ্ঠুভাবে এবং সঠিক পথে নামাজ কালাম আদায় করার পাশাপাশি অন্যান্য ইবাদতের শরিক হয়ে নিজেদের জীবনকে পরিচালনা করার শিক্ষা পেয়ে থাকি।Chottogram 1

তবে যাই হোক আমাদের ওয়েবসাইটে এই ইফতারের সময়সূচি প্রদান করা হচ্ছে যাতে করে সময়সূচি দেখে নিয়ে আপনারা আপনাদের কর্মব্যস্ত জীবনে নিজেদেরকে কিছুটা হলেও ফ্রী সময় দিতে পারেন। তাছাড়া ইফতারের অংশগ্রহণ করার ক্ষেত্রে বিভিন্ন ধরনের যোগাড় পাতির ব্যবস্থা করতে হয় বলে আপনারা যদি আগে থেকে এগুলো জেনে নিতে পারেন তাহলে সেই অনুযায়ী প্রস্তুতি গ্রহণ করাটা সুবিধে জনক হবেন। মাহে রমজানের প্রথম তারিখ থেকে শুরু করে শেষ তারিখ পর্যন্ত আপনাদের এই সময়সূচী প্রদান করা হলো এবং সময়সূচী দেখে নিয়ে আপনারা প্রত্যেকটি কাজ সম্পন্ন করতে পারলে মাহে রমজান মাস সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার জন্য এগিয়ে থাকতে পারবেন।